মুক্তাগাছায় প্রধানমন্ত্রীকে কটুক্তির প্রতিবাদ করায় মুক্তিযোদ্ধা লাঞ্ছিত

মুক্তাগাছা উপজেলার খামারের বাজারে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে কটুক্তির প্রতিবাদ করায় ৩নং তারাটি ইউনিয়ন মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডের সাবেক কমান্ডার বীরমুক্তিযোদ্ধা মফিজ উদ্দিন লাঞ্ছনার শিকার হয়েছেন। 

মুক্তাগাছা উপজেলার খামারের বাজারে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে কটুক্তির প্রতিবাদ করায় ৩নং তারাটি ইউনিয়ন মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডের সাবেক কমান্ডার বীরমুক্তিযোদ্ধা মফিজ উদ্দিন লাঞ্ছনার শিকার হয়েছেন।

মঙ্গলবার দুপুরে খামারের বাজারে একটি চায়ের দোকানে ঘটনাটি ঘটে।

মফিজ উদ্দিন জানান, দুপুরে আমার দোকানের পাশেইর চায়ের দোকানে বেশ কয়েকজন লোক বর্তমান বাজার অবস্থা নিয়ে কথা বলছিল। এক পর্যায়ে সদর উপজেলার নিমতলা গ্রামের আব্দুর রহিম মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা কে নিয়ে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করতে থাকে। আমি এর প্রতিবাদ করলে রহিম। অপর বেঞ্চে বসে থাকা শশা ইজারা গ্রামের হাবিবুর রহমান মুন্সি গায়ে আঁচ লাগে এবং আমাকে রাজাকারের বাচ্চা রাজাকার বলে শাসাতে থাকে। পরবর্তীতে আমাকে দেখে নিবে বলে হুমকি দেয়।

প্রত্যক্ষদর্শী বীরমুক্তিযোদ্ধা আইয়ুব আলী বলেন, প্রধানমন্ত্রীকে গালমন্দ করা দেখে মফিজ ভাই প্রতিবাদ করলে রহিম ও হাবিবুর রহমান মুন্সি রাজাকার বলে মারতে আসে।

এদিকে বুধবার দুপুরে ও রাতে খামারের বাজারে মুক্তিযোদ্ধা, ইউনিয়ন আওয়ামী লী,  যুবলীগ  ও মুক্তিযোদ্ধা সন্তানরা এর প্রতিবাদে বিক্ষোভ মিছিল করে এর যথাযথ বিচার দাবী করে।

মুক্তাগাছা উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদ কমান্ডার ও ইউএনও সুবর্ণা সরকার বলেন, আমি বিষয়টি জেনেছি। ঘটনার সত্যতা পাওয়া গেলে, আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করবো।

আরো দেখুন

এই সম্মন্ধীয় সংবাদ

আরো দেখুন

Close
Back to top button
Close

অ্যাডব্লক সনাক্ত

আপনার বিজ্ঞাপন ব্লকার নিষ্ক্রিয় করে আমাদের সমর্থন বিবেচনা করুন