হাওড়ে বাঁধ নির্মাণে দুর্নীতিঃ ৬১ জনের বিরুদ্ধে মামলা দুদকের

দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক) হাওরে বাঁধ নির্মাণে দুর্নীতি, অনিয়ম ও কর্তব্যে অবহেলার অভিযোগে পানি উন্নয়ন বোর্ডের (পাউবো) সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা ও ঠিকাদারসহ ৬১ জনের বিরুদ্ধে মামলা করেছে । রোববার সুনামগঞ্জ সদর থানায় এই মামলা করেন দুদকের সহকারী পরিচালক ফারুক আহমেদ।

আসামিদের মধ্যে সুনামগঞ্জের পানি উন্নয়ন বোর্ডের বরখাস্তকৃত নির্বাহী প্রকৌশলী মো. আফছার উদ্দীনসহ দুজনকে গ্রেপ্তারও করা হয়েছে। কমিশনের উপ পরিচালক (জনসংযোগ) প্রণব কুমার ভট্টাচার্য এ তথ্য জানান। আসামিদের তালিকায় সিলেট বিভাগীয় পাউবো এবং সুনামগঞ্জ জেলা পাউবোর কর্মকর্তাদের নাম রয়েছে জানিয়ে তিনি বলেন, অন্য আসামিদের গ্রেপ্তারের প্রক্রিয়া চলছে। টানা বর্ষণ ও পাহাড়ি ঢলে এ বছরের মার্চের শেষ দিকে দেশের উত্তর-পূর্ব অঞ্চলের বিস্তীর্ণ হাওর এলাকা তলিয়ে যায়। দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের তথ্য অনুযায়ী হাওরাঞ্চলের ছয় জেলায় মোট দুই লাখ ১৯ হাজার ৮৪০ হেক্টর জমির ফসল ক্ষতিগ্রস্ত হয়; ক্ষতির শিকার হয় আট লাখ ৫০ হাজার ৮৮টি পরিবার।

এদিকে হাওর রক্ষা বাঁধ প্রকল্পে দুর্নীতির অভিযোগে তদন্ত শুরু করে দুদক। কমিশনের পরিচালক মোহাম্মদ বেলাল হোসেনকে প্রধান করে তিন সদস্যের একটি অনুসন্ধান দল গঠন করা হয়। দুদকের তদন্ত চলার মধ্যেই সিলেটে পানি উন্নয়ন বোর্ডের তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলী মো. নুরুল ইসলাম সরকার, অতিরিক্ত প্রধান প্রকৌশলী (উত্তর-পূর্বাঞ্চল) মো. আব্দুল হাই এবং সুনামগঞ্জের নির্বাহী প্রকৌশলী মো. আফসার উদ্দীনকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়।

উল্লেখ্য, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা গত ৩০ এপ্রিল সুনামগঞ্জে ক্ষতিগ্রস্ত এলাকা পরিদর্শনে গিয়ে বলেন, বাঁধ নির্মাণে কারো গাফিলতির প্রমাণ পাওয়া গেলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

আরো দেখুন

এই সম্মন্ধীয় সংবাদ

Back to top button
Close

অ্যাডব্লক সনাক্ত

আপনার বিজ্ঞাপন ব্লকার নিষ্ক্রিয় করে আমাদের সমর্থন বিবেচনা করুন