সিলেটের টিলায় ফের ধ্বসে শ্রমিকের মৃত্যু

সিলেটের কোম্পানীগঞ্জের শারপিন টিলায় পুলিশের উপস্থিতিতেই টিলা ধ্বসে এক পাথর শ্রমিক নিহত হয়েছেন। গুরুতর আহত হয়েছেন আরও দুইজন। এ ঘটনায় পুলিশ একজনকে গ্রেপ্তার করেছে।  পুলিশ জানিয়েছে চিকাঢর গ্রামের করিম আহমদের গর্তের অবৈধভাবে পাথর উত্তোলনের সময় এ ঘটনা ঘটে। এ সময় পুলিশ গর্তের মালিকের ভাই আব্দুল কাদিরকে গ্রেপ্তার করেছে। সিলেটের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সুজ্ঞান চাকমা রাতে  জানিয়েছেন- দায়িত্বে গাফলাতির অভিযোগে সন্ধ্যায় কোম্পানীগঞ্জ থানার ওসি বায়েস আলমকে প্রত্যাহার করা হয়েছে।

জানা যায়, গাফিলতির অভিযোগে গতকাল রাতে কোম্পানীগঞ্জ থানার ওসি বায়েছ আলমকে প্রত্যাহার করা হয়েছে। গত ২৩শে জানুয়ারি শারপিন টিলার আঞ্জু মিয়ার গর্তের ভেতর পাথর উত্তোলনকালে উপরের অংশ ধ্বসে মারা গিয়েছিল ৫ শ্রমিক। এ ঘটনার পরও দমেনি পাথরখেকো ভুমি দস্যুরা।

পুলিশও নিয়মিত টহল দিচ্ছিল ওই টিলায়। কিন্তু শনিবার বিকালে পুলিশ উপস্থিত থাকাকালেই হঠাৎ টিলা ধ্বসে কয়েকজন শ্রমিক চাপা পড়ে। এ সময় স্থানীয়রা মাটিচাপা অবস্থায় এক পাথর শ্রমিকের লাশ উদ্ধার করেন। নিহত শ্রমিকের নাম আনিস মিয়া। সে সুনামগঞ্জ সদরের আহমদাবাদ গ্রামের কমরউদ্দিনের ছেলে। আর আহত অপর দুইজনকে কোম্পানীগঞ্জ স্বাস্থ্য কপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। আহতরা হলো আব্দুল গফুর ও মিজানুর রহমান।

আরো দেখুন

এই সম্মন্ধীয় সংবাদ

আরো দেখুন

Close
Back to top button
Close

অ্যাডব্লক সনাক্ত

আপনার বিজ্ঞাপন ব্লকার নিষ্ক্রিয় করে আমাদের সমর্থন বিবেচনা করুন